‘মেধাসম্পদের যথাযথ সুরক্ষার মাধ্যমে দেশকে এগিয়ে নিতে হবে

ঢাকা : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বাংলাদেশকে এগিয়ে নিতে মেধাসম্পদের যথাযথ সুরক্ষার মাধ্যমে দেশীয় উদ্ভাবকদের উদ্ভাবনের সুরক্ষা দিতে হবে, সেই সঙ্গে দেশীয় শিল্পের গতি ও রপ্তানি বাণিজ্য বাড়াতে হবে।

আজ মঙ্গলবার ‘বিশ্ব মেধাসম্পদ দিবস’ উপলক্ষে দেওয়া এক বাণীতে তিনি এ কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, বর্তমান আওয়ামী লীগ সরকার দেশের বৃহৎ, মাঝারি ও ক্ষুদ্র শিল্পের উদ্যোক্তা ও উদ্ভাবকরা যেন তাদের উদ্ভাবনী কার্যক্রম যথাযথভাবে সংরক্ষণের জন্য রেজিস্টার করতে ও অধিকার সংরক্ষণ করতে পারে সে লক্ষ্য যথাযথ পদক্ষেপ নিয়েছে। বাংলাদেশ পেটেন্ট আইন, ২০২২ ইতোমধ্যে সংসদে পাস হয়েছে। এ ছাড়া বাংলাদেশ শিল্প নকশা আইন-২০২২ প্রণয়নের কাজ চলমান রয়েছে। ট্রেডমার্ক আইন, ২০০৯ সংশোধন করে ট্রেডমার্ক (সংশোধন) আইন, ২০১৫ করা হয়েছে; ভৌগোলিক নির্দেশক পণ্য (নিবন্ধন ও সুরক্ষা) আইন, ২০১৩ ও বিধিমালা ২০১৫ প্রণয়ন করা হয়েছে যা আন্তর্জাতিক মানের সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ।

শেখ হাসিনা বলেন, বাংলাদেশ অতি দ্রুত পিসিটি (পেটেন্ট কোঅপারেশন ট্রিটি) ও মাদ্রিদ প্রোটোকলের সঙ্গে যুক্ত হতে সংশ্লিষ্ট আইনগুলো যুগোপযোগী করার ব্যবস্থা নিয়েছে। আওয়ামী লীগ সরকার বিভিন্ন ক্ষেত্রে অবদানের জন্য পুরস্কার দিচ্ছে, যেন উদ্যোক্তা ও উদ্ভাবকরা উৎসাহিত হচ্ছে। তারই ধারাবাহিকতায় যুবদের জন্য ‘শেখ হাসিনা ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ড’ দেওয়া হচ্ছে, এতে তরুণ ও যুবকরা উৎসাহিত হচ্ছে।

প্রধানমন্ত্রী গবেষক, প্রযুক্তিবিদ, শিল্পপতি, ব্যবসায়ী ও উদ্যোক্তাদের প্রতি মেধাসম্পদ পরিচর্যা করা ও উন্নয়নের অংশীদার হওয়ার আহ্বান জানান। তিনি বিশ্ব মেধাসম্পদ দিবসের সার্বিক সফলতা কামনা করেন।